টেক নিউজ

বিদ্যুতের গতিতে বাড়ছে পেট্রোলের দাম! খরচ বাঁচাতে ভারতের বাজারে এল ৫টি সেরা ইলেকট্রিক স্কুটার, দামও সাধ্যের মধ্যে

পেট্রোল-ডিজেল চালিত গাড়ির আয়ু হয়তো আর বেশিদিন নয়। বিশেষজ্ঞদের মতে, পৃথিবীর তেলের ভান্ডার শেষ হয়ে আসছে ধীরে ধীরে। এছাড়া দূষণমুক্ত পৃথিবী গড়ে তুলতে এগুলি বর্জন করা জরুরী। অন্যদিকে ভারতে তেলের দাম যে পরিমান বৃদ্ধি পাচ্ছে তাতে সাধারণ মানুষের গাড়ি চালাতে গিয়ে উনুনে হাঁড়ি চড়ানো দায় হয়ে পরছে। যে কারনে এখন ভারতের বাজারে অত্যাধুনিক ব্যাটারি চালিত স্কুটার এসেছে। আজ এই প্রতিবেদনে আপনাদের তেমনই ৫টি সেরা ইলেকট্রিক স্কুটার সম্পর্কে জানাবো –

১] OLA S1 ও S1 Pro

কয়েকদিন আগেই ওলা সংস্থা বাজারে এনেছে তাদের ইলেকট্রিক স্কুটার। Ola S1 ও Ola S1 Pro নামের এই দুটি স্কুটার বাজারে এনেছে সংস্থা। S1টির ক্ষেত্রে একচার্জে ১২১ কিলোমিটার পথ যাওয়া যাবে। এর ব্যাটারি ২.৯৮ কেডাবলুএইচ (kwh)। অন্যদিকে ৩.৯৭ কেডাবলুএইচ (kwh) ব্যাটারির S1 Pro ১৮১ কিমির পথ অতিক্রম করতে পারবে। দিল্লী শোরুমে এটির দাম ১,১০,১৪৯ টাকা থেকে শুরু। আর S1 স্কুটির ক্ষেত্রে দিল্লী শোরুমে দাম রাখা হয়েছে ৮৫,০৯৯ টাকা থেকে।

২] Komaki TN95

এই কোমাকি কোম্পানি দুর্দান্ত তিনটি ইলেকট্রিক স্কুটার বাজারে নিয়ে এসেছে। TN95, SE এবং MS এই তিনটি মডেল আপাতত আছে সংস্থার।
TN95 – দাম রাখা হয়েছে ৯৮,০০০ টাকা ও এক চার্জে চলবে ১০০-১৫০ কিলোমিটার।
SE – দাম ৯৬,০০০ টাকা। এক চার্জে এটিও ১০০-১৫০ কিমি পর্যন্ত যেতে পারবে।
MS – এটির দাম রাখা হয়েছে ৯৯,০০০ টাকা। এই মডেলটি কোম্পানির টপ মডেল হিসাবে রাখা হয়েছে। এক চার্জে এটি ১০০-১৫০ কিমি পথ যেতে পারবে।

৩] Simple One

দারুন ফিচারস-এর সাথে ইলেকট্রিক স্কুটার সিম্পল ওয়ান বাজারে এসেছে। নাম সিম্পল হলেও কাজে অসাধারণ এই স্কুটার। ৪.৮ কেডাবলুএইচ ব্যাটারি থাকবে যা পোর্টেবেল। ১,১০,০০০ টাকা থেকে শুরু এর দাম। একবার চার্জ দিয়ে ইকো মোডে ২০৩ কিমি পর্যন্ত যেতে পারবে। শুধু তাই না, ভারতীয় ড্রাইভ সাইকেল মোডে ২৩৬ কিমি পর্যন্ত যেতে পারবে। তাহলে আর চিন্তা কিসের! যত তাড়াতাড়ি সম্ভব সিম্পল ওয়ান-কে করে নিন রাস্তার সঙ্গী।

৪] Bounce Infinity

বাউন্স কোম্পানি সম্প্রতি নতুন ইলেকট্রিক স্কুটার বাজারে নিয়ে এসেছে। এই স্কুটিটির একটি বিশেষ ব্যাপার আছে। বাইরের দেশে দারুন জনপ্রিয় এই Bounce Infinity স্কুটি। গাড়ি ও চার্জার দুইই দেয় কোম্পানি। যার মোট দাম পরে মাত্র ৬৮,৯৯৯ টাকা। যা অন্য কোম্পানির দামের তুলনায় অনেকটা কম। তবে সব থেকে আশ্চর্য করবে ব্যাটারি ছাড়া এই গাড়ির দাম শুনলে। মাত্র ৩৬,০০০ টাকায় পাবেন গাড়িটি। একবার চার্জ দিলে ৮৫ কিমি পথ অতিক্রম করতে পারবে এই বাহনটি।

৫] EeVe Soul

EeVe Soul স্কুটারটি বাইকের থেকে কোনো অংশে কম নয়। এর ফিচারসও অনেকটাই ভালো। এই স্কুটারটিতে রয়েছে ইউএসবি পোর্ট, সেন্ট্রাল ব্রেকিং সিস্টেম, রিভার্স মোড, অ্যান্টি থেফট লক সিস্টেম, জিপিএস নেভিগেশন ও সব থেকে আশ্চর্যের জিও ট্যাগিং। তাহলে বুঝতেই পারছেন কোম্পানি প্রায় সব ফিচারস কিন্তু দিয়েছে Soul স্কুটারটির মধ্যে। এর দাম এক্স শোরুমে ১,৩৯,০০০ টাকা।

তবে ভারতের বাজারে কি এই বেশি দামের স্কুটারগুলি এখনই চলবে? তা নিয়ে সন্দেহ আছে বাইক প্রেমীদের। তাদের মতে, তুলনায় ওলা বা বাউন্স কোম্পানির গাড়ির দাম সাধারণ মানুষদের কাছে অনেকটাই পকেট ফ্রেন্ডলি হবে।

Related Articles