অফবিট

মাতৃ স্নেহের নিদারুণ দৃশ্য! মাহারা ছটি ব্যাঘ্র শাবককে পরম ভালোবাসায় বড় করে তুলছে একটি কুকুর

প্রতিদিনের নানান কর্মকাণ্ডের চিত্র বর্তমানে ধরা পড়ে সোশ্যাল মিডিয়ার পাতাতে। সাধারণ মানুষ ছাড়া বিভিন্ন প্রজাতির পশুপাখিদেরও সারাদিনের খবর জানা যায় এই নেটদুনিয়া থেকেই। মাঝে মাঝে এমন কিছু ঘটনার সম্মুখীন আমরা হই, যা আমাদেরকে চমকৃত করে! সম্প্রতি বাঘ ও কুকুরের এরকমই এক কাছের সম্পর্কের মুহূর্ত চমকিত করেছে নেটিজেনদের।


জানা গেছে চীনের এক চিড়িয়াখানায় একদল বাঘেদের সাথে বসবাস করছে একটি গোল্ডেন রেট্রিভার কুকুর। বেশ খুনসুটিতে একে অপরের সাথে সময় কাটাচ্ছে তারা। ভিডিওতে দেখা গেছে একটি ছোট্ট বাঘের শাবক হঠাৎই দৌড়ে আসছে কুকুরটির দিকে, হয়তো দেখে মনে হবে কুকুরটিখে সে আক্রমণ করবে কিন্তু না! এরপরেই সবাইকে অবাক করে কুকুরটিকে আদর করতে শুরু করে ওই শাবকটি। কুকুর এবং বাঘের এমন মিলন সচরাচর চোখে দেখা যায় না, তাই ভিডিওটি দেখে স্বাভাবিকভাবেই অবাক হয়েছে নেটপাড়ার বাসিন্দারা।

চিড়িয়াখানার কর্মীদের সাথে কথা বলে জানা গেছে, একদা এক বাঘিনী বারোটি ছানার জন্ম দিয়ে, সেখান থেকে পালিয়ে গিয়েছিল। এরপর চিড়িয়াখানার কর্মীরা দুশ্চিন্তাগ্রস্ত হয়ে পড়ে, ওই ছোট্ট বাচ্চাগুলোকে মাতৃস্নেহে কে বা বড় করবে! এর পরেই তারা চিন্তা-ভাবনা করে ওই গোল্ডেন রেট্রিভার কুকুরটিকে বাঘের মায়ের বদলে সেখানে নিয়ে আসে। তারা ঠিক করে যতদিন না পর্যন্ত বাঘের বড় হচ্ছে, ততদিন তারা কুকুরটিকে ওই খাঁচাতেই রেখে দেবে। এরপর বাঘেরা যখন একটু বড় হয়ে আসবে, তারা যখন মাংসের স্বাদ কি সেটা বুঝে যাবে; তখন খাঁচা কুকুরটিকে বের করে আনবে। যেমন ভাবনা তেমনি কাজ; কুকুরটিকে বাঘগুলির হাত থেকে বাঁচানোর জন্য, বাঘগুলি বড় হতেই চিড়িয়াখানার কর্মীরা তাকে বের করে নিয়ে আসে। কিন্তু এর পরেই ঘটে চরম বিপত্তি! আস্তে আস্তে এই বিমর্ষ হয়ে পড়ে ব্যাঘ্র শাবকগুলি। পুনরায় কুকুরটিকে তাদের খাঁচায় দিয়ে আসতেই দেখা যায়, তারা বেশ চনমনে হয়ে উঠেছে। কুকুরটিও বাঘগুলির সাথে খেলতে ব্যস্ত হয়ে পড়েছে। স্বাভাবিকভাবেই এমন একটি ঘটনা নেটবাসীর মনে আবেগের সঞ্চার ঘটিয়েছে।

Related Articles