এই ছোট্ট মেয়ে পেলেন বিশ্বসুন্দরী শিশুর শিরোপা, রইল তার আসল পরিচয়

নীল চোখের ছোট্ট পরী সকলের দৃষ্টি আকর্ষণ করেছে। জন্মানোর পর থেকেই তার ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় রীতিমতন ভাইরাল। কোকড়ানো চুল, নীল চোখ, গোলাপি ঠোঁটের জাদুতে মজেছে গোটা বিশ্ব। গোটা বিশ্বের তাবড় তাবড় নায়িকাদের তুলনায় কোন অংশেই কম নয় এই ছোট্ট শিশুটি। যার ফ্যান ফলোইং গোটা বিশ্ব জুড়ে ছড়িয়ে রয়েছে। সোশ্যাল মিডিয়ায় কোন ছবি পোস্ট হওয়ার পরেই তার ফ্যান ফলোয়ার্স সংখ্যা দেখে বোঝা যায় মেয়েটির চারদিকে কত গুনগ্রাহী মানুষ রয়েছেন।

এতক্ষণ যে ছোট্ট মেয়েটির প্রশংসা করা হচ্ছে তার নাম ইরানের অনাহিতা হাশেমজাদেহ। জন্য ইরানের ইসফাহান শহরে। ২০১৬ সালের ১০ ই জানুয়ারি মা বাবার কোল আলো করে জন্ম হয় এই ছোট্ট মেয়েটির। মনভোলানো খিলখিলিয়ে হাসিতে গোটা বিশ্বের মানুষকে তার দিকে তাকাতে বাধ্য করেছে। এতো ফ্যান ফলোয়ার্স নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় সামলানো তো আর মুখের কথা নয়, তবে তার পক্ষে একা কিছু করা সম্ভব না, এখানে মেয়েটিকে সাথ দিয়েছেন তার মা। মেয়ের এমন গুনগ্রাহী মানুষ দেখে তার মা নিজেও মাঝে মাঝে অবাক হয়ে যান। ২০১৮ সালে প্রথম তার ছবি ইনস্টাগ্রামে পোস্ট হয়। তারপর থেকেই একেবারে হইহই করে মানুষের মনের মধ্যে ঢুকে পড়ে মেয়েটি।

তবে সোশ্যাল মিডিয়ার চক্করে এসে হঠাৎই তার ইনস্টাগ্রাম হ্যাক করা হয়। পরবর্তীকালে তার মা আরেকটি ইনস্টাগ্রামে একাউন্ট খুলেন। এইভাবে মায়ের সাপোর্টে মেয়ে রীতিমতো গোটা বিশ্বের সামনে মডেলে পরিণত হয়। কয়েকদিন আগে করোনাভাইরাস এই ছোট্ট মিষ্টি মেয়েকে কাবু করার খবর তখন গোটা সোশাল মিডিয়া জুড়ে। গোটা বিশ্বজুড়েই তার ফ্যান ফলোয়ার্সরা তা নিয়ে রীতিমতো চিন্তিত হয়ে পড়েছিলেন। কিন্তু অবশেষে তার মা জানান এ খবরটি পুরোপুরি ভুয়ো।

যারা মনে করেন কন্যাসন্তান মহাপাপ, কন্যা সন্তান প্রতিটা পিতার গলার গলগ্রহ, তাদের কাছে এই ভিডিওটি সত্যিই অন্যরকম একটি ভিডিও হিসাবে একটি বার্তা পৌঁছে দেবে। মেয়েরা চাইলে কত কিছুই না করতে পারে। এখানে অবশ্য বাচ্চাটি তার সৌন্দর্যের জন্য সকলের কাছে পৌঁছে গেছে। মিষ্টি হাসির মিষ্টি ছোঁয়ায় সকলকে একেবারে কাত করে দিয়েছে ছোট্ট অনাহিতা।

আরও পড়ুন

ভাইরাল ভিডিও

⚡ Trending News

আরও পড়ুন