ভাতের সঙ্গে খাওয়ার জন্য সুস্বাদু ও স্বাস্থ্যকর নিরামিষ ঝিঙে কোপ্তা কারি বানানোর রেসিপি


বাঙালি বরাবরই খাদ্য রসিক। প্রতিদিন ভাতের সাথে নানান রকম পদ খেতে ভালো বাসেন। যেহেতু এখন গরমকাল আর সেই কথা মাথায় রেখেই আজ আপনাদের কাছে নিয়ে এসেছি নিরামিষ ঝিঙে কোপ্তা কারির রেসিপি,যা নিরামিষ দিনে একবারে উপযুক্ত। এমনকি এমনি দিনেও আপনি খুব সহজেই পথ দিয়ে বানিয়ে ফেলতে পারবেন। চলুন দেখে নিই।

উপকরণ:- ঝিঙে ৩টি, আলু ২টি, টমেটো বাটা ১ টেবিল চামচ, আদা ১ টেবিল চামচ, সামান্য বেসন, শুকনো লঙ্কা, তেজপাতা, গোটা জিরে, কোরানো নারকেল ১ কাপ, ১ চামচ চালের গুঁড়ো, হলুদ গুঁড়ো ১চা চামচ, লঙ্কাগুঁড়ো স্বাদমতো, নারকেল কুচানো ১কাপ, টকদই ১ কাপ,বাদাম ভাজা ২ টেবিল চামচ,নুন স্বাদমতো, মিষ্টি স্বাদ মত, কুচানো কাঁচালঙ্কা, গরম মসলা ১ চামচ, ঘি ১ চামচ, সরষের তেল ১ কাপ।

প্রণালি :- প্রথমে ঝিঙে আলু সেদ্ধ করে নিতে হবে। এরপর কড়াইতে তেল গরম করে প্রথমে আদাবাটা দিয়ে একটু নাড়াচাড়া করে তারপর সেদ্ধ করে রাখা ঝিঙে আলু দিয়ে দিতে হবে। এরপর একটি তাওয়ায় শুকনো লঙ্কা গোটা জিরে ও তেজপাতা ভাল করে ভেজে গুড়ো করে নিতে হবে, আর তারপর ভাজা মশলা হিসেবে দিতে হবে। সঙ্গে নুন, চিনি ভেজে রাখা বাদাম ও কুচানো নারকেল দিয়ে দিতে হবে এরপর ভাল করে নাড়িয়ে চাড়িয়ে গ্যাস থেকে নামিয়ে নিতে হবে। এবার একটি পাত্রে ছড়িয়ে দিতে হবে ঠান্ডা হওয়ার জন্য।

ঠান্ডা হয়ে গেলে চালের গুঁড়ো ও বেসন মিশিয়ে ছোট ছোট বলের আকারে গড়ে বানিয়ে নিতে হবে। এরপর কারি বানানোর জন্য একটি কড়াইয়ে সর্ষের তেল দিয়ে তাতে ফোড়ন হিসাবে শুকনো লঙ্কা, গোটা জিরে ও তেজপাতা দিতে হবে। এরপর টমেটো বাটা, আদা বাটা দিয়ে ভাল করে সব মসলা কষিয়ে নিতে হবে। এরপর নুন,চিনি, কোরানো নারকেল, গুঁড়ো মশলা দিয়ে দিতে হবে। তারপর দিতে হবে ফেটানো টক দই। ভালো করে কষিয়ে নেওয়ার পর সামান্য একটু গরম জল দিয়ে নুন ও মিষ্টি চেখে নিতে হবে। তারপর আগে থেকে করে রাখা কোপ্তা গুলো দিয়ে দিতে হবে। এরপর ঢাকা দিয়ে রাখতে হবে কিছুক্ষণ গ্যাসটিও মিডিয়ামে রাখতে হবে। ৫ মিনিট পর ঢাকনা খুলে উপর দিয়ে গরম মসলা,ঘি দিয়ে দিলেই তৈরি হয়ে যাবে আপনাদের সকলের প্রিয় ‘নিরামিষ ঝিঙে কোপ্তা কারি’।

আরও পড়ুন

ভাইরাল ভিডিও

⚡ Trending News

আরও পড়ুন