বিনোদন

দর্শকমহলে আজও হিট দিশা-ভিভানের জুটি, অভিনেত্রীর রহস্যজনক মৃত্যুতে রয়ে গেল শূন্যস্থান

যারা বাংলা সিরিয়াল দেখার পোকা তাঁরা হয়ত ‘কৃষ্ণকলি’ ধারাবাহিক দেখেন। এই ধারাবাহিকে খলনায়িকার পাঠ করেন দিশা ও খলনায়কের পাঠ করেন অশোক। নীল-শ্যামার পাশাপাশি দিশা-ভিভানের জুটিও হিট ছোট পর্দায়। তবে কি ভিভানের পিছু ছাড়ছে না এই ‘দিশা’ নামটি? খুলেই বলা যাক- ২০১৫ সালে বাংলা টেলিভিশন জগতের একজন অভিনেত্রী সুইসাইড করেন। নাম দিশা গাঙ্গুলি। সূত্রের খবর অনুযায়ী, অভিনেত্রী দিশা গঙ্গোপাধ্যায়ের সঙ্গে ভিভান ঘোষের প্রেমজ সম্পর্ক ছিল। যেদিন টেলি অভিনেত্রী দিশা গাঙ্গুলি আত্মহত্যা করেন সেদিন ভিভানের সঙ্গে আইপিএল দেখে ডিনার করে অনেক রাতে নিজের ফ্ল্যাটে ফেরেন তিনি। ফিরেও রাত ১ টা পর্যন্ত ভিভানের সঙ্গে ফোনে কথা বলেন। ময়না তদন্তের রিপোর্ট অনুযায়ী জানা যায় এরপরেই দিশা আত্মহত্যা করে। এমনকি ভিভান ঘোষই সকালে দিশার নিথর দেহ উদ্ধার করে। ভিভান প্রথম দরজা ভেঙে দিশার দেহ ঝুলন্ত অবস্থা থেকে নামান। সেদিন ভিভানের কথা অনুযায়ী, সকাল থেকে দিশাকে বহুবার ফোন করা হয়, উত্তর না পেয়ে সক্কাল সক্কাল এসে উপস্থিত হন তিনি।

দিশার ওই ফ্ল্যাটে তাঁর সঙ্গে এক বান্ধবীও থাকতেন বলে জানা গিয়েছে। যার নাম-সুচন্দ্রা বন্দ্যোপাধ্যায়। যেদিন এই ঘটনা ঘটে সেদিন আরও একটি ঘটনা ঘটে যায় হাওড়ায়। দিশার মৃত্যু দিন কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই হাওড়ায় রেললাইনের পাশ থেকে এক তরুণীকে উদ্ধার করা হয়। এই সেই সুচন্দ্রা বন্দ্যোপাধ্যায়। সেও সুইসাইড করতে চায়, কিন্তু সেদিন পুলিশ মারফত তাঁকে তাঁর বাবা-মায়ের হাতে তুলে দেওয়া হয়। পরে জানা যায় এই মেয়েটি দিশার বাড়িতেই থাকতেন। এবং ওই তরুণীর পরিবার সূত্রেও জানা গিয়েছে যে বৃহস্পতিবার খেতে বসে দিশার মৃত্যুসংবাদ পান ওই মেয়েটি। তার পরেই খাওয়া ফেলে বেরিয়ে যান। প্রসঙ্গত, এই দুই বান্ধবী ছিলেন হরিহর আত্মা। এঁদের আলাপ হয় ‘মৌচাক’ নামে এক সিরিয়ালের সেট থেকে।

দিশার মৃত্যুর জন্য অভিনেতা ভিভান ঘোষকে বহু জেরা করে পুলিশ আধিকারিকরা। দিশার শরীরের ময়না তদন্ত হয়, তাঁর ঘর থেকে কোন সুইসাইড নোট মেলেনি। দিশার ফোনের লক খোলার পর জানা যায় শেষ কল ছিল ভিভান ঘোষের। যার সঙ্গেই দিশা দীর্ঘক্ষণ কথা বলেন। এই ভিভানের সঙ্গে সেইসময় দিশা প্রায় তিনটি বাংলা ধারাবাহিকে একসঙ্গে কাজ করতেন। এছাড়াও এই দুই জুটি রিয়েল লাইফেও একসঙ্গে ঘর বাঁধতেও চেয়েছিলেন, অন্তত এমনটাই জানা গিয়েছিল অভিনেতা ভিভানের মুখ থেকে।

এখন অভিনেতা ভিভান টেলিভিশনের পর্দায় অনেক বেশি সুপরিচিত মুখ। বিয়েও করেছেন বান্ধবী পৃথা মুখোপাধ্যায়কে। ২০১৭ তেই গাঁটছড়া বাঁধেন ভিভান। ইন্ডাস্ট্রি সূত্রে খবর, পৃথা অভিনয় জগতের সঙ্গে যুক্ত নন। এবং ২০১৬ থেকে প্রেম শুরু হয় ভিভান ও পৃথার মধ্যে। এরপরেই বিয়ে। কিন্তু আজও দিশা গঙ্গোপাধ্যায়ের মৃত্যুর কারণ অজানা। পুলিশ উদ্ধার করতে পারেননি সুইসাইডের মোটিভ।

 

View this post on Instagram

 

A post shared by Vivaan Ghosh (@vivaanghosh)

Related Articles