×
বিনোদন

সলমন অভিনীত গান গেয়ে সারেগামাপার স্টেজে আগুন ধরালেন স্নিগ্ধজিৎ! প্রশংসা ভাইজানের

Advertisements
Advertisements

প্রত্যেক সপ্তাহে সারেগামাপা’র মঞ্চে নিত্যনতুন চমক দিয়েই চলেছে বাংলার গর্ব স্নিগ্ধজিৎ ভৌমিক। ২০১৮ সালে বাংলা সারেগামাপা-র স্টেজে নিজের গান দিয়ে তুমুল প্রশংসা পেয়েছেন এই প্রতিযোগী। ২০২১ এ এবার নিজের গান দিয়ে মঞ্চ কাঁপাচ্ছেন।গত সপ্তাহে কিশোর কুমারের গান গেয়ে দর্শক সহ সকল বিচারক আর জুড়িদের মন জিতে নিয়েছেন বুনিয়াদপুরের এই ভূমিপুত্র। সম্প্রতি সারেগামাপা-র মঞ্চে অন্তিম: দ্য ফাইনাল ট্রুথ’র প্রোমোশন করতে হাজির হয়েছিলেন ভাইজান, আয়ুষ শর্মা, আর ছবির নায়িকা মহিমা মকওয়ানা।

Advertisements

এবার এই স্পেশ্যাল এপিসোডে বাংলার ছেলে স্নিগ্ধজিৎ ভৌমিকের গান শুনে মাতোয়ারা হল সেটের উপস্থিত সক্কলে। এদিন সকল বিচারক থেকে জুরি সকলের এই বাংলার ছেলের গানে নাচল সবাই। এদিন সলমনের জনপ্রিয় কালজয়ী সিনেমা ‘প্যায়ার কিয়া তো ডরনা কেয়া’র সুপার হিট গান ‘ও হো জানে জানা’ গান গাইতে শোনা গেল বাংলার স্নিগ্ধজিৎকে। প্রথম থেকেই স্নিগ্ধজিৎ নিজের মতো গান গেয়ে নিজের আলাদা জায়গা করে নিয়েছেন তিনি। আর অডিশন রাউন্ডেই নিজের গলায় অসাধারণ গান গেয়ে প্লেব্যাক গান করার অফার পেয়েছিলেন বিশাল দাদলানির থেকে।

এমনকি বাপ্পি লাহিড়ীও স্নিগ্ধজিৎের গানের প্রশংসা করেছিলেন। এদিন গান গেয়ে ফের সলমনের মন জয় করলেন। এতটাই এর গান ভাইজানের ভালো লেগেছে তাই নিজেকে আটকাতে পারলেন না সলমন৷ তিনিও স্নিগ্ধজিৎের গানের সাথে গলা মেলালেন। সঙ্গে বারংবার ‘অপূর্ব’ কথাাও বলতে শোনা গেল। মহিমা বাংলার ছেলের গানে প্রশংসা করে বলল, ‘স্টেজে আগুন লাগিয়ে দিয়েছ’।

গত সেপ্টেম্বর মাস থেকে শুরু হয়েছে জি টিভিতে সারেগামাপা ২০২১। আর প্রথম থেকেই বাংলার ছেলে নিজের পার্ফম্যান্স দিয়ে বাংলা সহ ভারতের বহু সঙ্গীতপ্রেমীর মন জয় করে নিয়েছেন। এক সাক্ষাৎকারে এই গায়ক জানিয়েছেন, জাতীয় স্তরে তিনি জয়ের থেকে বেশি আরও ভালো মানের ট্রেনিং পাওয়ার আশাতেই এসেছেন। তিনি আরো জানিয়েছেন, এই লকডাউনে এমনিতেই কম হচ্ছিল স্টেজ শো। তাই অডিশনের খবর পাওয়ার পর পরই চলে এসেছিলেন মুম্বই। উল্লেখ্য, এবার বাংলা থেকে স্নিগ্ধজিৎ ছাড়াও রয়েছেন আরও চার প্রতিযোগী। অনন্যা চক্রবর্তী, নীলাঞ্জনা, কিঞ্জল আর দীপায়নরাও। সকলেই এই মঞ্চে নিজের সেরা দিয়ে সকলের মন জয় করার চেষ্টা করছেন।

Advertisements