×
বিনোদন

বধূ সাজে সোশ্যাল মিডিয়ায় অবতরণ করলেন ঋতাভরী

Advertisements
Advertisements

‘ওগো বধূ সুন্দরী’! ঋতাভরী চক্রবর্তী এই টেলিভিশন ধারাবাহিক দিয়ে নিজের অভিনয় জীবন শুরু করেছিলেন ঋতাভরী। বর্তমানে টলিউডের পাশাপাশি বলিউডে হিন্দি সিনেমাতে অভিনয় করছেন অভিনেত্রী। তারই সাথে নিজে গান লিখে কন্ঠ মেলাচ্ছেন। আবার নিজের লাস্যময়ী রূপ দিয়ে হয়ে উঠেছেন সকলের প্রিয় বং ক্রাশ। তবে অভিনেত্রীর জনপ্রিয়তা শিখরে নিয়ে টেলি ধারাবাহিক ওগো বধূ৷ সুন্দরী।

Advertisements

এক দশক হয়ে গিয়েছে তার এই ধারাবাহিকটির প্রচার হওয়া। তা সত্ত্বেও আজও ঋতাভরী চক্রবর্তীর নাম উঠলেই সকলের মনে পড়ে যায় ছোট্ট মেয়ের অভিনীত ললিতা চরিত্রটিকে। মা হারা বাবার জেদী আদরের মেয়ে থেকে শ্বশুরবাড়ির আদর্শ বউ হয়ে ওঠার গল্প। এই চরিত্রটি অভিনয় করার সময় ঋতাভরী স্কুলে পড়তেন। স্কুল পড়ুয়া হয়েও প্রথ কাজেই নিজের অভিনয় দক্ষতার মাধ্যমে দারুণভাবে চরিত্রটিকে ফুটিয়ে তুলতে সক্ষম হয়েছিলেন অভিনেত্রী। এখন টলিউডে বিভিন্ন প্রজেক্টে কাজ করে প্রশংসিত হলেও একাধিক সাক্ষাৎকারে তিনি নিজেও স্বীকার করে নিয়েছেন যে ললিতা তার ভীষণ প্রিয় চরিত্র ছিল আর থাকবে।

ফের একবার সোশ্যাল মিডিয়ায় সেই ললিতার সাজেই ভিডিও পোস্ট করতে দেখা গেল অভিনেত্রী ঋতাভরী চক্রবর্তীকে। বলাই বাহুল্য সোশ্যাল মিডিয়ায় ফের একবার চাঞ্চল্য পড়ে যায় ললিতার সাজ এর ছবি দেখে। শেয়ার করা ভিডিয়োতে দেখা যাচ্ছে লাল শাড়ি এবং সোনার গয়নায় উজ্জ্বল ঋতাভরী। এই সাজের সঙ্গে চলছে মানানসই মেকআপ। কোনো ব্রাইড্যাল শ্যুটের জন্য তৈরি হচ্ছেন তা ভিডিও দেখে বোঝা যাচ্ছে। এই ভিডিও পোস্ট করে অভিনেত্রী লেখেন, ‘ওগো বধূ সুন্দরী। এই বিয়ের মরসুমে বাঙালি কনের সাধারণ সাজের লুক শেয়ার করছি।’ এরপরই অভিনেত্রী বলেম ‘যখনই আমাকে কনে সাজতে হয়, তখনই তৈরি হতে আমার সবচেয়ে বেশি সময় লাগে।’ সাজতে বেশি সময় লাগলেও এই সাজে তিনি যে বেশ মোহময়ী লাগছে, তা এক বাক্যে স্বীকার করে নিয়েছেন তার অনুগামীরা। শেয়ার হতেই নিমেষে ভাইরাল হল ললিতার এই সাজ।

Advertisements