‘ধূলোকণা’ ধারাবাহিকে নতুন টুইস্ট, বিয়ের মণ্ডপে পিতৃ পরিচয় জানতে পারল ফুলঝুরি, ভাইরাল প্রমো

Lalon-Fuljhuri

গল্পের এই নতুন টুইস্ট ঘিরে রীতিমতো হইচই। নতুন প্রোমো দেখা যাচ্ছে, বিয়ের আসরে ফুলঝুরি’কে অনাথ বলে কটাক্ষ করে চড়ুই। তখনই বুলেট বলে, ‘না, ওর জন্ম পরিচয় আছে। আমি ওর বাবা, আর এই যো ওর মা। চড়ুইয়ের সঙ্গে তোর আর কোনও পার্থক্য নেই, তুই এই বাড়ির মেয়ে’।

মিঠাই-এর সঙ্গে লড়াইয়ে এঁটে ওঠা মোটেই সহজ নয়, তবে জোরদার টক্কর দিচ্ছে ‘ধুলোকণা’। টিআরপি তালিকাতেও ভালো রেজাল্ট করছে একটানা। এর মাঝেই ধারাবাহিকে হাজির বিরাট টুইস্ট। সিরিয়ালের নায়িকা ফুরঝুরির কাহিনি শুরু হয়েছিল বস্তির মেয়ে হিসাবে। এরপর জানা যায়, এতদিন বাবা-মা হিসাবে যাদের সে জানতো তাঁরা ওর আসল বাবা-মা নয়, তাদের কুড়িয়ে পাওয়া সন্তান। ফুলঝুরি মানিককে বিয়ে করতে অস্বীকার করলে এই রহস্য ফাঁস হয়।

পিতৃ পরিচয়হীন ফুলঝুরিকে সবসময় চডু়ইয়ের অপমানের শিকার হতে হয়েছে। পাশাপাশি নানান ষড়যন্ত্রের মুখেও পড়েছে সে, তবে এবার বদলে যাবে চড়ুইয়ের জীবন। এতোদিনে নিজের আসল বাবা-মা’য়ের পরিচয় জানতে পারবে সে। ইঙ্গিত মিলেছিল আগেই, এবার পুরো সত্যিটা জানতে পারবে ফুলঝুরি নিজেই। চুড়ইয়ের সঙ্গে কোনও পার্থক্য নেই ফুলঝুরির, সে কাজের মেয়ে নয় বরং চড়ুইয়ের কাকার মেয়ে। হ্যাঁ, বুটেল আর পরমাই ফুলঝুরির বাবা-মা। সে কথা লালন-ফুলঝুরির বিয়ের মণ্ডপে জানাবে বুলেট নিজে।

এই প্রোমো দেখে অনেকেই খুশি, কেউ কেউ আবার মজার কমেন্টও করছেন। একজন লিখেছেন, ‘এতোদিন লালন বুলেট’কে দাদা বলত, এবার দাদা বাবা হয়ে গেল!’ উল্লেখ্য, এই ধারাবাহিকে পরমার চরিত্রে আগমন ঘটেছে অভিনেত্রী শম্পা বন্দ্যোপাধ্যায়ের। এর আগে ম্যাজিক মোমেন্টসের ‘দেশের মাটি’ ধারাবাহিকে কিয়ানের কাকিমা হিসাবে দেখা গিয়েছে তাঁকে।