×
বিনোদন

Rituparna Sengupta: সুখবর শোনালেন অভিনেত্রী ঋতপর্ণা সেনগুপ্ত!

Advertisements
Advertisements

টলিউডের এভারগ্রীন অভিনেত্রী ‘ঋতুপর্ণা সেনগুপ্ত’ (Rituparna Sengupta)। ৯০ দশ থেকে শুরু করে বর্তমান সময়কাল পর্যন্ত বিভিন্ন সিনেমায় তার অভিনয় দক্ষতা ইতিমধ্যেই দর্শকদের মন জয় করে নিয়েছে। এর পাশাপাশি বিভিন্ন গণ্যমান্য ব্যক্তিত্বের সম্পর্কেও যথেষ্ট ওয়াকিবহুল তিনি। তরুণ মজুমদারের ‘আলো’ সিনেমাতে, নিজের চরিত্র অত্যন্ত দক্ষভাবে সকলের সামনে তুলে ধরেছিলেন তিনি। এই পাশাপাশি শরৎচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়ের উপন্যাস অবলম্বনে ‘দত্তা’ সিনেমাতেও অভিনয় করেছেন তিনি। গত ১৬ ই জানুয়ারি সেই সিনেমারই স্মৃতিচারণ করলেন শরৎচন্দ্রের মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে।

Advertisements

উপন্যাসের বয়স পেরিয়েছে ১০৩ বছর। সেই সময় শরৎচন্দ্র চট্টোপাধ্যায় ‘ শরৎবাবু’ নামেই অধিক পরিচিত ছিলেন। হলে তার সাহিত্যে বরাবরই আধুনিকতার ছোঁয়া রেখেছিলেন তিনি। তার সেই আধুনিকতা বঙ্গ সমাজের অনেকেই গ্রহণ করতে পারত না কিন্তু অনেকেই আবার সেগুলি নিয়ে প্রশংসা করত। এর পাশাপাশি বঙ্কিমচন্দ্রও ছিলেন আধুনিকতার পথিকৃত। তবে কখনোই এই সব থেকে পিছিয়ে যাননি তারা বরং একের পর এক সাহিত্য রচনা করে গেছেন সকলের জন্য।

‘দত্ত- সাহিত্যটি আধুনিকতারই এক অন্যতম রূপ। ১৯৭৬ সালে সর্বপ্রথম এই উপন্যাসের চলচ্চিত্রায়িত হয়েছিল। সেই সময়ে ‘অজয় কর’ এই ছবির পরিচালনা করেছিলেন এবং মুখ্য চরিত্রে ছিলেন ‘সুচিত্রা সেন’, ‘সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়’ এবং শমিত ভঞ্জ। ২০১৯ সালে ‘নির্মল চক্রবর্তী’ আবারো এই সিনেমাটি তৈরি করেন। সেখানে মুখ্য চরিত্রে দেখা গিয়েছিল ‘ঋতুপর্ণা সেনগুপ্ত’, ‘জয় সেনগুপ্ত’ এবং ফেরদৌসকে। বিজয়ার চরিত্রে ছিলেন ঋতুপর্ণা। তার শুটিং হয়েছিল শান্তিনিকেতনে।

 

View this post on Instagram

 

Shared post on

সম্প্রতি ঋতুপর্ণার প্রযোজনা সংস্থা ‘ভাবনা: আজ ও কাল’-এর প্রযোজনায় ‘দত্তা’র শুটিং ও পোস্ট প্রোডাকশনের কাজ কিছুটা হলেও সম্পূর্ণ হয়েছে। তবে করণাকালীন পরিস্থিতিতে এই ছবির মুক্তির সময় কাল কিছুটা পিছিয়ে গিয়েছে। জানুয়ারিতে শরৎচন্দ্রের মৃত্যুবার্ষিকীতে অভিনেত্রী ঘোষণা করেছেন এই ছবির মুক্তির দিন। চলতি বছরের নববর্ষের দিনে মুক্তি পাবে দত্তা।

Advertisements